আসল রূপ বেরিয়ে আসছে! ‘বিজেপি ঘনিষ্ঠতা’ নিয়ে প্রসেনজিতকে বিঁধলেন শ্রীলেখা

সংবাদ প্রতিদিন ডিজিটাল ডেস্ক: টলিপাড়ায় তিনি পরিচিত ঠোঁটকাঁটা হিসেবে। অভিনেতা প্রসেনজিত চট্টোপাধ্যায়ের সঙ্গে তাঁর সম্পর্কও যে তেমন মধুর নয়, সেটাও কমবেশি সকলেরই জানা। কথা হচ্ছে শ্রীলেখা মিত্রর (Sreelekha Mitra)। বাংলার অভিনয় জগতের কলাকুশলীরা যেভাবে ‘মুড়ি-মুড়কি’র মতো রাজনীতির আঙিনায় পা রাখছেন, তা নিয়ে আরও একবার বিস্ফোরণ ঘটালেন শ্রীলেখা। আরও একবার সরাসরি বিঁধলেন প্রসেনজিতকে। বিজেপি নেতার সঙ্গে সাক্ষাতকে প্রসেনজিতের গেরুয়া শিবিরের সঙ্গে ঘনিষ্ঠতা বাড়ানোর ইঙ্গিত বলে মনে করছেন অভিনেত্রী। তাঁর দাবি, ধীরে ধীরে বাংলার এই সুপারস্টারের আসল রূপ বেরিয়ে আসছে।

মঙ্গলবার টলিউডের ‘মিস্টার ইন্ডাস্ট্রি’ প্রসেনজিৎ চট্টোপাধ্যায়ের (Prosenjit Chatterjee) সঙ্গে দেখা করতে গিয়েছিলেন বিজেপি নেতা অনির্বাণ গঙ্গোপাধ্যায়। বিভিন্ন বিষয়ে আলোচনার পাশাপাশি অভিনেতার হাতে নিজের লেখা বই ‘অমিত শাহ অ্যান্ড দ্য মার্চ অফ বিজেপি’ বইটি তুলে দেন তিনি। সেই ছবি আবার সোশ্যাল মিডিয়ায় পোস্টও করেন বিজেপি নেতা। যা নিয়ে এই মুহূর্তে রীতিমতো সরগরম রাজ্য রাজনীতি। প্রশ্ন উঠছে, তাহলে কি এবার প্রসেনজিতও গেরুয়া শিবিরে নাম লেখাতে চলেছেন? বিজেপি বা প্রসেনজিতের তরফে সরকারিভাবে এ বিষয়ে কিছু না বলা হলেও অনির্বাণ গঙ্গোপাধ্যায়ের পোস্ট করা ছবিটি দেখে শ্রীলেখা মিত্রর মনে হয়েছে, “শীঘ্রই প্রসেনজিত বিজেপিতে যোগ দেবেন। এবং এটাই তাঁর আসল স্বরূপ।” বিজেপি নেতার সঙ্গে প্রসেনজিতের ছবিটি সোশ্যাল মিডিয়ায় শেয়ার করে অভিনেত্রী লিখছেন,”আমার নিন্দুকেরা যারা আমাকে মিথ্যেবাদী প্রমাণ করার চেষ্টা করেছিলেন, তাঁরা আশা করি খানিকটা উত্তর পেলেন।” সেই সঙ্গে তিনি জুড়ে দিয়েছেন #সবইমায়া হ্যাশট্যাগটি। 

 

একটা সময় বাংলা ইন্ডাস্ট্রির স্বজনপোষণ নিয়ে রীতিমতো বিস্ফোরণ ঘটিয়েছিলেন শ্রীলেখা। সরাসরি সুর চড়িয়েছিলেন প্রসেনজিতের বিরুদ্ধে। অভিনেত্রীর অভিযোগ, সেসময় অনেকেই তাঁকে ‘মিথ্যা’ প্রমাণ করার চেষ্টা করেছেন। তাঁর বিরুদ্ধে টলিউডেরও বহু মানুষ মুখ খুলেছিলেন। কিন্তু, প্রসেনজিতের বিজেপি ঘনিষ্ঠতাই বুঝিয়ে দিচ্ছে আসলে তিনি কেমন মানুষ। শ্রীলেখার কথায়,”এবার মানুষের কাছে এঁদের আসল মুখগুলো বেরিয়ে আসবে। এঁদের মানসিকতা প্রকাশিত। এঁরা কেমন মানুষ সেটা জানা যাবে। “

[আরও পড়ুন: বিজেপির ‘যশ’ প্রাপ্তি, গেরুয়া শিবিরে যোগ টলিপাড়ার একঝাঁক তারকার]

টলিউডে এই মুহূর্তে রাজনীতির আঙিনায় পা রাখাটা যেন ফ্যাশন হয়ে দাঁড়িয়েছে। ছোট-বড়-মাঝারি সব স্তরের অভিনেতাই সবুজ কিংবা গেরুয়া কোনও না কোনও শিবিরে ‘আশ্রয় খোঁজার’ চেষ্টা করছেন। শ্রীলেখার স্পষ্ট কথা, “প্রচুর লোকজন বিজেপিতে যোগ দিচ্ছেন। অনেকে টাকা নিয়ে মানুষের কাজ করতে যাচ্ছে। ঠিক যেভাবে শো করে, বা টাকা নিয়ে ফিতে কাটে, বা বিয়ে বাড়িতে হাজিরা দিতে যায়। ঠিক সেভাবেই টাকা নিয়ে যারা রাজনীতির ‘র’ বোঝে না তাঁরাও মানুষের কাজ করতে যাচ্ছে।” অভিনেত্রীর দাবি, তাঁর কাছেও বিজেপিতে যোগদানের প্রস্তাব ছিল। হয়তো টাকাও দেওয়া হত। কিন্তু বিজেপির সঙ্গে আদর্শগতভাবে তিনি যে সম্পূর্ণ ভিন্ন মেরুতে অবস্থান করেন, তা আরও একবার স্পষ্ট করে দিয়েছেন শ্রীলেখা।

বিস্তারিত পড়ুন::